1. multicare.net@gmail.com : সময়ের পথ :
শুক্রবার, ১২ অগাস্ট ২০২২, ১১:৩২ অপরাহ্ন

ব্রাহ্মণবাড়িয়া বিজয়নগরে জোরপূর্বক ব্যক্তি মালিকানা ও সরকারি রাস্তায় মাছের ব্যবসা — জনসাধারণের চরম দুর্ভোগ !

প্রতিবেদকের নাম:
  • প্রকাশিত: সোমবার, ২৭ জুন, ২০২২
  • ১৮ বার পড়া হয়েছে

ব্রাহ্মণবাড়িয়া বিজয়নগরে জোরপূর্বক ব্যক্তি মালিকানা ও সরকারি রাস্তায় মাছের ব্যবসা — জনসাধারণের চরম দুর্ভোগ !

মোঃ আবদুর রহমান খান ওমর :-

. জেলা ব্রাহ্মণবাড়িয়া বিজয়নগর উপজেলায় সরকার নির্ধারিত জায়গায় মাছের ব্যবসা না করে, জোরপূর্বক ব্যক্তি মালিকানা জায়গা ও সরকারী রাস্তায় বসে মাছ ব্যবসা —–যানজট, দুর্ঘটনা সহ মহামারী হওয়ার আশঙ্কা—যেন দেখেও দেখার কেউ নেই !!

চান্দুরা বাজার নৌকা ঘাটে রাস্তার উপর ও আমতলী বাজারের (চৌরাস্তা) রাস্তার উপর বসে, দীর্ঘদিন যাবৎ মৎস্য ব্যবসায়ীরা প্রকাশ্যে বীরদর্পে রাস্তার উপর অবৈধভাবে মাছের ব্যবসা করে আসছে । মাছ ব্যবসায়ীদ্বয়, সমাজের গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গ ও জণপ্রতিনিধিদের কে, জানিয়েও কোনো সুফল পাওয়া যায়নি । অবশেষে দ্বারস্থ সহকারী কমিশনার (ভূমি) বিজয়নগর ও ব্রাহ্মণবাড়িয়া বিজ্ঞ নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট আদালত ।

. সূত্রে জানা যায়, নজরুল ইসলাম জাহাঙ্গীর (৫৫) পিতা-মৃত সিরাজুল ইসলাম, সাং-সাতগাঁও (পশ্চিম বাজার) ইউপি-০২নং চান্দুরা,উপজেলা-বিজয়নগর, জেলা ব্রাহ্মণবাড়িয়া। ২রা জুন, ২০২২ইং নাম উল্লেখ করে ১। মন্নর আলী, (৫৫) পিতা-মৃত অজ্ঞাত, ২। দানিছ মেম্বার, পিতা-অজ্ঞাত, ৩। টিট্রা মিয়া, পিতা-অজ্ঞাত, সাং-আমতলী বাজার (সকলেই মাছ ব্যবসায়ী) ইউপি-০২নং চান্দুরা, উপজেলা-বিজয়নগর, জেলা-ব্রাহ্মণবাড়িয়াগন সহ তাহাদের সহযোগী মাছ ব্যবসায়ী আমার চান্দুরা নিজস্ব মার্কেট এর সামনে অর্থ্যাৎ চান্দুরা টু আখাউড়া গামী পাকা রাস্তা উপর আমতলী বাজার চৌ-রাস্তা সংলগ্ন এর পশ্চিম দিকে মার্কেটের সামনে সন্ধ্যা বেলায় উল্লেখিত ব্যক্তিগণ মাছ ব্যবসার স্থান হতে সন্ধ্যা সময় মার্কেটের সামনে বসিয়া ব্যবসায়ীগণ মাছ ব্যবসা দীর্ঘদিন যাবৎ পরিচালনা করিয়া আসিতেছে। সময় উক্ত রাস্তাটি গাড়ী জ্যাম গেলেই থাকে।

যাহার ফলে জনসাধারণ উক্ত রাস্তা দিয়ে চলাচল করিতে খুবই অসুবিধা হয় । উক্ত বিষয়ে বাজার কমিটির লোকজনকে অবহিত করিলে পর মাছ ব্যবসায়ীদ্বয় বাজার কমিটির কথা আমান্য করিয়া অবৈধ ভাবে মাছ ব্যবসা সহ নানাহ প্রকার ব্যবসা বাণিজা করিয়া আসিতে থাকে। উক্ত বিষয়ে স্থানীয় জন প্রতিনিধিকে অবহিত করিলে পর ব্যবসায়ীগণ উক্ত জায়গাতে মাছের ব্যবসা করিবে মর্মে প্রকাশ্যে হুমকি ও ধমকি দিয়া আসিতেছে।

এছাড়াও মাছ ব্যবসায়ীগন উক্ত জায়গাতে সংকোলান না হওয়ার ফলে সরকারি রাস্তার কিনারে বসিয়া মাছ বিক্রয় কার্যক্রম পরিচালনা করিয়া থাকে । এতে করে প্রতিনিয়ত মারাত্মক দূর্ঘটনা হওয়ার সম্ভবনা রহিয়াছে। যথাযথ কর্তৃপক্ষের মাধ্যমে উপরে উল্লেখিত বিষয়ে, উক্ত ব্যক্তিদ্বয়ের বিরুদ্ধে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণের অভিযোগ করেন ।

সংবাদটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরো সংবাদ পড়ুন

আরো লেখাসমূহ

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত
প্রযুক্তি সহায়তায় ইয়োলো হোস্ট