1. multicare.net@gmail.com : সময়ের পথ :
শনিবার, ১০ ডিসেম্বর ২০২২, ০১:০৮ পূর্বাহ্ন
ব্রেকিং নিউজ :
আন্তর্জাতিক দুর্নীতি বিরোধী দিবস পালিত l বিভাগীয় প্রশাসন ও দুর্নীতি দমন কমিশন চট্টগ্রাম ১০ ই ডিসেম্বর আন্তর্জাতিক মানবাধিকার দিবস উপলক্ষে চট্টগ্রাম প্রেসক্লাবের সামনে শফিকুল ইসলাম পেলেন এফবিজেও এর সম্মাননা স্মারক গাজাসহ ২কারবারী আটক-র‌্যাব-৭,ফেনী ক্যাম্প। রামগড়ে হানাদার মুক্ত দিবস পালিত ডাকাতি প্রস্তুতিকালে অশ্রসহ আটক ৪-সদরঘাট থানা নওগাঁর মান্দায় সপ্তম শ্রেণীর শিক্ষার্থী ফাইনাল পরিক্ষার ৩য়দিনে অপহরণ জাতীয় শিক্ষা সপ্তাহ আবৃত্তি প্রতিযোগীতায় প্রথম স্থান লাভ করেন জান্নাতুল মাওয়া। নওগাঁর মান্দায় ফকিন্নী নদী পুনঃখনন কাজের উদ্বোধন বগুড়া শান্তাহারে মানবিক সাহায্য সংস্থা নামের এনজিও কিস্তি না পেয়ে,মাথা ফাটিয়ে ক্যাসবক্স থেকে টাকা ছিনতাই

বকেয়া বিলের টাকাকে ‘ঘুষ’ হিসেবে চালিয়ে ডিজিএমকে ফাঁসানোর চেষ্টা

প্রতিবেদকের নাম:
  • প্রকাশিত: শুক্রবার, ৬ মে, ২০২২
  • ১৫১ বার পড়া হয়েছে

পাবনা পল্লী বিদ্যুৎ সমিতি-১ দাশুড়িয়া জোনাল অফিসের ডেপুটি জেনারেল ম্যানেজারকে (ডিজিএম) বিদ্যুৎ সংযোগের বকেয়া ৫০ হাজার টাকা দিয়ে সেটিকে ‘ঘুষ’ হিসেবে ভিডিও করে প্রচারের অভিযোগ উঠেছে।

আমিনুল ইসলাম রানা নামে এক খেলাপিগ্রাহকের বিরুদ্ধে উঠেছে এমন অভিযোগ। এ ঘটনায় থানায় লিখিত অভিযোগ দিয়েছে ডিজিএম।

থানায় দায়েরকৃত অভিযোগ ও পাবনা পল্লী বিদ্যুৎ সমিতি-১ জোনাল অফিস সূত্রে জানা গেছে, গত বুধবার (১৪ সেপ্টেম্বর) সকাল ১০টার দিকে দাশুড়িয়া পুরাতন ট্রাফিক মোড় এলাকার আমিনুল ইসলাম রানা ৩/৪ জন সহযোগী নিয়ে অফিসে যান। সেখানে ৫০ হাজার টাকার একটি বান্ডিল নিয়ে ডেপুটি জেনারেল ম্যানেজার সাজ্জাদুর রহমানকে উৎকোচ প্রদানের অভিনয় করে ভিডিও করার চেষ্টা করেন। ঘটনা বুঝতে পেরে আমিনুল ইসলামকে ধরার চেষ্টা করলে আমিনুল ইসলামসহ তার সহযোগীরা দ্রুত পালিয়ে যায়।

এদিকে অফিস সূত্রে জানা গেছে, আমিনুল ইসলাম দাশুড়িয়া জোনাল অফিসের একজন খেলাপি গ্রাহক। তার বাবার নামে ৯ লাখ ৩ হাজার ৯৪৮ টাকা বিদ্যুৎ বিল বকেয়া থাকার কারণে আদালতে মামলা চলমান রয়েছে।

পাবনা পল্লী বিদ্যুৎ সমিতি-১ দাশুড়িয়া জোনাল অফিসের ডেপুটি জেনারেল ম্যানেজার (ডিজিএম) সাজ্জাদুর রহমান বলেন, ওই গ্রাহকের ৯ লাখ টাকার বেশি বিল বকেয়া রয়েছে। তার সংযোগ বিচ্ছিন্ন করা হয়। আমিনুল ইসলাম আদালতে রিট করলে আদালত তাকে ৬ মাসের মধ্যে বিল পরিশোধ করার নির্দেশনা দেয়। আমরা ৬ মাসের মাসিক কিস্তিতে বিল পরিশোধ করার ব্যবস্থা করে দেই। কিন্তু তিনি বিল পরিশোধ না করে উল্টো আমাকে দেখে নেবার হুমকি দেন। পরে নতুন সংযোগ নিতে এসে আমরা বলি আগের বিল বকেয়া পরিশোধ করতে হবে। তখন তিনি টাকা বের করে আমাকে দেন৷ আমি টাকা নিয়ে তাকে বলি টাকাটা ক্যাশ কাউন্টারে জমা দেন। এসময় তাদের কয়েকজন মোবাইলে ভিডিও করে সেটিকে ‘ঘুষ’ হিসেবে প্রচার করার চেষ্টা করছে। পরে ওই দিনই থানায় লিখিত অভিযোগ দেয়া হয়।

এ বিষয়ে খেলাপি গ্রাহক আমিনুল ইসলাম রানার সঙ্গে যোগাযোগের চেষ্টা করা হলে ফোন বন্ধ থাকায় তার বক্তব্য পাওয়া যায়নি।

ঈশ্বরদী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) অরবিন্দ সরকার বলেন, এ বিষয়ে একটি লিখিত অভিযোগ পেয়েছি। সেটা তদন্তপূর্বক প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

সংবাদটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরো সংবাদ পড়ুন

আরো লেখাসমূহ

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত
প্রযুক্তি সহায়তায় ইয়োলো হোস্ট